×

আলু ও ক্যাপসিকামের এই তরকারি হার মানাবে মাছ মাংসের স্বাদকেও, চেয়ে চেয়ে খাবে বাচ্চা থেকে বুড়ো

ভাত ও রুটির সাথে খেতে খুব সহজে বানিয়ে ফেলুন ক্যাপসিকাম এর এই অসাধারণ রেসিপি।

শীতের মরশুম শুরু হতেই প্রতিটি বাড়িতে আরম্ভ হয়েছে বিভিন্ন ধরনের সবজির আনাগোনা। ফলে এখন নিত্যদিনই বিভিন্ন ধরনের সবজির তরকারি রান্না হচ্ছে। পাশাপাশি আলুর বিভিন্নরকম পদ তো আছেই। তবে প্রতিদিন একই ধরনের তরকারি খেতে খেতে অনেকেরই মুখে অরুচি চলে আসে। তাই মুখের স্বাদের বদল ঘটাতে ট্রাই করতে পারেন নতুন একটি রেসিপি। আজকের এই প্রতিবেদনে রইলো আলু ও ক্যাপসিকামের তৈরি সেরকমই একটি রেসিপি সম্পর্কে। যা ভাত ও রুটির সাথে খেতে লাগবে দুর্দান্ত।

উপকরণ-
১. ক্যাপসিকাম
২. আলু
৩. গোটা জিরে
৪. গোটা সর্ষে
৫. সর্ষের তেল
৬. পেঁয়াজ
৭. হিং
৮. আদা কুঁচি
৯. কাঁচা লঙ্কা কুঁচি
১০. টমেটো
১১. কাশ্মীরি লঙ্কার গুঁড়ো
১২. হলুদ গুঁড়ো
১৩. গরম মসলা
১৪. ধনে গুঁড়ো
১৫. জিরে গুঁড়ো
১৬. চিনি
১৭. চাট মসলা
১৮. গরম জল
১৯. নুন

প্রণালী-

প্রথমে চার পাঁচটি বড়ো সাইজের আলু ও একটি বড়ো ক্যাপসিকাম নিয়ে ছোট ছোট টুকরো করে কেটে নিতে হবে। এবার আলুগুলিকে একটি পাত্রে সামান্য নুন ও জল দিয়ে হালকা ভাপিয়ে নিয়ে জল ঝরিয়ে আলাদা করে রেখে দিতে হবে।

এরপর একটি কড়াইতে সামান্য সর্ষের তেল গরম করে তাতে ১/২ চামচ গোটা জিরে ও ১/২ চামচ গোটা সর্ষে দিয়ে দিতে হবে। জিরে ও সর্ষে সামান্য ভেজে তার মধ্যে ১ চামচ কাঁচালঙ্কা কুচি, ২ চামচ হিং ও সামান্য আদা কুচি দিয়ে মিডিয়াম আঁচে ১ মিনিটের মতো নাড়াচাড়া করে নিতে হবে।

তারপর এরমধ্যে একটি বড় সাইজের পেঁয়াজকুচি দিয়ে মিনিট তিনেক সবকিছুকে ভালোমতো নেড়েচেড়ে আগে থেকে ভাপিয়ে রাখা আলুগুলিকে দিয়ে দিতে হবে। এবার মিনিট পাঁচেক পেঁয়াজের সাথে আলুগুলিকে কষিয়ে নিতে হবে।

আলু কষানো হয়ে গেলে তাতে টমেটো কুচি দিয়ে ২ মিনিট ভালোমতো রান্না করে নিতে হবে। এরপর তাতে টুকরো করে রাখা ক্যাপসিকাম, ১ চামচ কাশ্মীরি লঙ্কাগুঁড়ো, ১/২ চামচ হলুদ গুঁড়ো, ১ চামচ ধনে গুঁড়ো, ১/২ চামচ জিরে গুঁড়ো ও স্বাদমতো নুন দিয়ে কিছুক্ষণ আলু ও ক্যাপসিকাম ভালো মতো কষিয়ে নিতে হবে।

মসলা ভালোমতো কষে গেলে তাতে সামান্য পরিমাণ গরম জল দিয়ে কিছুক্ষণ নাড়াচাড়া করে নিতে হবে। এবার তাতে ১ চামচ চাট মসলা, ১/২ চামচ গরম মসলা গুঁড়ো ও সামান্য চিনি দিয়ে কিছুক্ষণ ভালোমতো রান্না করে নিতে হবে। এরপর তাতে আরো সামান্য পরিমাণ জল দিয়ে মিনিট পাঁচেক রান্না করে তার ওপর ধনেপাতা কুচি ছড়িয়ে নামিয়ে নিলেই তৈরি সুস্বাদু স্বাদের ‘আলু-ক্যাপসিকামের ঝাল’।

Related Articles